গ্যারাজে ঘুমোন বিশ্বধনী এলন মাস্কের মা!

২৯ আগস্ট,২০২২

গ্যারাজে ঘুমোন বিশ্বধনী এলন মাস্কের মা!

নিউজ ডেস্ক
আরটিএনএন
ঢাকা: বিশ্বের ধনী তালিকায় তার নাম শীর্ষে। অথচ সেই এলন মাস্কের বাড়িতে তার মায়ের শোওয়ার ঘর জোটে না! ধনকুবের ছেলের খোঁজখবর নিতে মাঝেমধ্যে এলনের মা মায়ে মাস্ক এসে হাজির হন তার বাড়িতে।

ওই সময় নাকি তাকে বাধ্য হয়েই ঘুমোতে হয় বাড়ির গ্যারাজে। অন্তত মায়ে তা-ই জানিয়েছেন এক সাম্প্রতিক সাক্ষাৎকারে।

এলনের মতো না হলেও তার মা একজন তারকা। ৭৪ বছরের মায়ে পেশায় মডেল আবার সমাজকর্মী হিসেবেও পরিচিতি আছে তার।

মায়ে বলেছেন, বেশ কিছু দিন আগেই তিনি ছেলে এলনের সাথে দেখা করতে গিয়েছিলেন টেক্সাসে। স্পেসএক্সের সদর দফতরে এলনের জন্য নির্দিষ্ট বাড়িতে তখন থাকছিলেন এলন। সেখানেই আলাদা ঘর না থাকায় গ্যারাজে রাত কাটাতে হয় ধনকুবেরের মাকে। অবশ্য মায়ে তা নিয়ে বিশেষ আফশোস করেননি।

সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে ছেলে এলনের সাথে তার সম্পর্ক নিয়ে কথা বলছিলেন মায়ে। কথা প্রসঙ্গে ছেলের বাড়িতে যাওয়া এবং গ্যারাজে রাত কাটানোর অভিজ্ঞতার কথা জানালেও মায়ে বলেছেন, তাকে গ্যারাজে ঘুমোতে হয়েছে তার কারণ স্পেসএক্সের সদর দফতরে ছেলের বাড়িটি ছোট।

কেন ছোট তার কারণ জানিয়ে মায়ে বলেন, ‘যেখানে দিনরাত রকেট তৈরির কাজকারবার চলছে সেখানে বিশ্বের যতবড় ধনীই হোন, তার জন্য অট্টালিকা বানানো সম্ভব নয়।’ আর তিনি সেটা বোঝেন। তবে একই সাথে মা জানিয়েছেন, শুধু এই বাড়িটি ছোট বলে নয়, এমনিতেই এলনের ইদানীং বাড়ি বা সম্পত্তি কেনার ব্যাপারে কিছুটা অনীহা দেখা গেছে।

এ বছরের শুরুতেই এলন বলেছিলেন, তার আর নিজের কোনো বাড়ি নেই। তিনি বন্ধুর বাড়িতে থাকেন। স্পেসএক্সের সিইও আরো বলেছিলেন, ‘আমি প্রায় আমার সমস্ত সম্পত্তি বিক্রি করতে শুরু করেছি। কোনো বাড়ি রাখব না আমার নামে। কারণ সম্পত্তি আমাদের ভারী করে দেয়। আর সেই ভার সর্বদা নিচের দিকেই টানে।’

এলন জানিয়েছিলেন, তার বাড়ি বলতে স্পেসএক্সের সদর দফতরের একটি ভাড়া বাড়ি। যার মূল্য ৫০ হাজার ডলার।

মন্তব্য

মতামত দিন

আমেরিকা পাতার আরো খবর

টর্নেডোর আঘাতে লণ্ডভণ্ড আমেরিকার কেন্টাকি, শতাধিক নিহতের আশঙ্কা

আন্তর্জাতিক ডেস্কআরটিএনএনঢাকা: ৩৬৫ কিলোমিটার বেগের এক টর্নেডোর আঘাতে লণ্ডভণ্ড হয়ে গেছে যুক্তরাষ্ট্রের কেন্টাকি অঙ্গরাজ্ . . . বিস্তারিত

মায়ামির ধসে পড়া ভবনের ‘বড় ত্রুটি’ আগেই জানানো হয়েছিল

আন্তর্জাতিক ডেস্কআরটিএনএনঢাকা: ফ্লোরিডার মায়ামিতে যে ভবনটি ধসে পড়েছে সেটায় বড় ধরনের ত্রুটি পাওয়া গিয়েছিল। ২০১৮ সাল . . . বিস্তারিত

 

 

 

 

 

 

ফোন: +৮৮০-২-৮৩১২৮৫৭, +৮৮০-২-৮৩১১৫৮৬, ফ্যাক্স: +৮৮০-২-৮৩১১৫৮৬, নিউজ রুম মোবাইল: +৮৮০-১৬৭৪৭৫৭৮০২; ই-মেইল: rtnnimage@gmail.com